থানচির তিন্দুতে জনসংযোগ মেলা অনুষ্ঠিত

বুধবার ৮ ডিসেম্বর ২০২১ ২২:৪২


::থানচি (বান্দরবান) প্রতিনিধি ::
 
 
বান্দরবানে থানচিতে তিন্দু ইউনিয়নের প্রথম বারের মতো সেবা প্রদানকারী প্রতিষ্ঠান ও জনসংযোগ মেলা ২০২১ অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়েছে। বুধবার (৮ ডিসেম্বর) সকাল ১০ টায় থানচির তিন্দুতে মাংলুং হেডম্যান পাড়াতে মাংলুং পাড়া নারী দলে আয়োজনে পাড়া প্রধান রেংত্লে খুমী সভাপতিত্বে
 
বিএনকেএস এর প্রজেক্ট কো-অর্ডিনেটর উবানু মারমা সংঞ্চালনায় সেবা প্রদানকারী প্রতিষ্ঠান ও জনসংযোগ মেলা অনুষ্ঠিত হয়েছে। অনুষ্ঠানে নারী দলের হাতে ত্রিশ হাজার চেকসহ শিশুদের শিক্ষা সামগ্রী উপকরণ এবং নারী স্বাস্থ্য কর্নার ও গৃহপালিত প্রাণির টিকাদান কর্নারের মাধ্যমে সেবাগ্রহীতাদের সরাসরি প্রেক্টিক্যাল ও পরার্মশ প্রদান করা হয়।
 
অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত আছেন, একশনএইড বাংলাদেশ ম্যানেজার মোঃ আজাদুল ইসলাম। বিশেষ অতিথি হিসেবে আরো উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা পরিদর্শক ক্যথুইচিং মারমা, কৃষি অধিদপ্তরে সহকারী অফিসার উত্তম মারমা, স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে
 
মিটওয়াইফ ডাঃ মিলুফা ইয়াসমী, প্রানিসম্পদ অধিদপ্তরে সহকারী অফিসার মনিকা তঞ্চংঙ্গ্যা, একশনএইড বাংলাদেশ এর মোঃ জাহাঙ্গীর হোসেন, মারুফ হাসান, তিন্দু সিএইসসিপি উসাইমে মারমা প্রমূখ। 
 
এছাড়াও বলিপাড়া নারী কল্যাণ সমিতি প্রজেক্ট ম্যানেজার পেশল চাকমা, অর্থ প্রশাসনিক শাখার ম্যানেজার আবামং মারমা, একাউন্ট অফিসার ম্যাম্যাসিং মারমা, ডাঃ উবাথোয়াই মারমা, বিএনকেএস প্রকল্পে কর্মী, মাংলুং পাড়ার যুব প্রধান ও অর্নাস সম্পন্নকারী ছাত্র রাইডার খুমী, যুব-যুবতী দল, নারী দল, পাড়াবাসীসহ শিক্ষার্থীবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।
 
অনুষ্ঠানে বক্তারা বলেন, থানচি উপজেলার তিন্দুতে মাংলুং পাড়া একটি অন্যতম গ্রাম। যার তিন্দু ইউনিয়নের মডেল গ্রাম হিসেবে চিহৃিত করতে চাই।
 
কেন না? এই গ্রামের খুমী সম্প্রদায়ের ১৭টি পরিবারের বসবাস হলেও অন্যান্য গ্রামের তুলনায় এই গ্রামের শিক্ষা হারের বৃদ্ধিরসহ সুশীল সমাজে সচেতন পর্যায়ে ঘটেছে। সমাজে টেকসই উন্নয়ন গড়তে শিক্ষা, স্বাস্থ্য ও কৃষিসহ সকল যুব সমাজে কর্মসংস্থানে সম্মুখীন হতে হবে।
 
বক্তারা আরো বলেন, দুর্গম এলাকায় স্বাস্থ্যের মা, শিশু ও কৈশোরকালীন স্বাস্থ্য নিরাপদসহ পাহাড়ে কৃষিকাজ ও গবাদি পশু পালনে বৃদ্ধির নিশ্চিত করতে পারলে টেকসই উন্নয়নে লক্ষ্যমাত্রা এক সূচক ঘটবে।
 
দুর্গম এলাকাগুলোতে টেকসই উন্নয়ন পৌঁচ্ছে দিতে উপজেলা স্বাস্থ্য পরিবার পরিকল্পনা বিভাগ, কৃষি অধিদপ্তর, প্রানিসম্পদ অধিদপ্তরসহ যে সকল সেবা প্রদানকারী প্রতিষ্ঠানের উপজেলা সরকারি-বেসরকারি অধিদপ্তর ও এনজিও সংস্থার সকলে এগিয়ে আসার আহব্বান জানান বক্তারা।

এমএসি/আরএইচ